নীল বসুঃ প্রায় দেড় বছর পর সাজা হল স্ত্রীর। ২০১৮ সালের ২৫ নভেম্বর নিউ টাউনে নিজের বাড়িতে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছিল কলকাতা হাইকোর্টের আইনজীবী রজত দে-কে। পুলিশ তদন্ত করে জানতে পারে রজতবাবুকে শ্বাসরোধ করে খুন করা হয়েছে। পুলিশের তদন্ত অনুযায়ী অনুমান স্ত্রী অনিন্দিতা পাল এই খুন করেছেন। এরপর খুনের অভিযোগে তাঁর স্ত্রী অনিন্দিতাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। যদিও ১০ মাসের মাথায় সুপ্রিম কোর্ট থেকে জামিন পান তিনি। অবশেষে দোষী সব্যস্ত হন স্ত্রী অনিন্দিতা পাল তাকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা শোনাল বারাসত আদালত। সোমবারদিন এই মামলায় অনিন্দিতা পালকে দোষী সাব্যস্ত করেন বিচারক। এদিন সাজা ঘোষণার সময় চরম বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয় আদালত চত্বরে। অনিন্দিতার ফাঁসির দাবিতে বিক্ষোভ দেখায় স্থানীয় মানুষেরা। যদিও সাজা ঘোষণার পর সংশোধনাগারে নিয়ে যাওয়ার সময় অনিন্দিত পাল সংবাদমাধ্যমের সামনে নিজেকে নির্দোষ বলে দাবি করেন।