শুভঙ্কর সরকারঃ গোর্খ্যাল্যান্ড নিয়ে আজ ত্রিপাক্ষিক বৈঠক ডেকেছে কেন্দ্র সরকার। সেই বৈঠকে মোর্চাকে আমন্ত্রণ জানিয়ে চিঠি পাঠানো হয় সিংমারিতে বিমল গুরুঙের বাড়ির ঠিকানায়। চিঠি যায় রাজ্য সরকার ও জিটিএ’র কাছেও। তবে বাংলা ভাগের বিরুদ্ধে পৃথক রাজ্য নিয়ে ডাকা এই বৈঠকে যাবে না বলে জানিয়ে দেয় রাজ্য সরকার। এই পরিস্থিতিতে ত্রিপাক্ষিক বৈঠক ভেস্তে যেতে পারে বুঝেই কেন্দ্রের তরফে সংশোধিত চিঠি পাঠিয়ে ভুল শুধরে জানিয়ে দেওয়া হল গোর্খ্যাল্যান্ড নিয়ে নয়, বৈঠক ডাকা হচ্ছে গোর্খ্যাল্যান্ড টেরিটোরিয়াল আডমিনিস্ট্রেশন নিয়ে। 
তবে রাজ্য সরকার এই বৈঠকে অংশ নেবে কিনা তা এখনো পরিষ্কার নয়। সংশোধিত চিঠিতেও রাজ্য সরকার, জিটিএ ছাড়াও আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে সিংমারির ঠিকানায় মোর্চার নেতৃত্বকে। জিটিএ নিয়ে বৈঠক হলে কেন বিমল গুরুং এর ঠিকানায় মোর্চার নেতাদের চিঠি দেওয়া হল তার ব্যাখ্যা কেন্দ্র দেয়নি। কেন জিটিএ প্রশাসক বোর্ডের পরিচালনায় থাকা বিনয় পন্থী মোর্চাকে চিঠি পাঠানো হলো না তাও এখনো অন্ধকারে।কেন্দ্র সরকারের উদ্দেশ্য কি তা এখনো পরিস্কার নয়। তবে বাংলা ভাগের প্রশ্ন উঠলে সমতলে যে আগুন জ্বলবে সে বিষয়ে কোন সন্দেহ নেই।